• ঢাকা
  • শুক্রবার:২০২৪:মে || ০৩:১০:২৮
প্রকাশের সময় :
এপ্রিল ১৪, ২০২২,
১২:৪৮ অপরাহ্ন

সর্বশেষ আপডেট :
এপ্রিল ১৪, ২০২২,
১২:৪৮ অপরাহ্ন

৮৪ বার দেখা হয়েছে ।

রোজার আগেই চাঙা মুনাফাখোর ব্যবসায়ীরা

রোজার আগেই চাঙা মুনাফাখোর ব্যবসায়ীরা

চালের বাজার স্থিতিশীল থাকলেও সিয়াম সাধনার মাস আসার আগ মুহূর্তেই নিত্যপণের দাম বেড়ে গেছে। লাগামহীন দামে নিম্ন মধ্যবিত্ত কিংবা মধ্যবিত্ত কেউ-ই পাচ্ছে না নাগাল।

বিশেষ করে রোজার দু’দিন আগে রাজধানীতে বেড়েছে সব ধরনের মসলার দাম। কোনও কোনও মসলার দাম কেজিতে বেড়েছে দেড়শ’ টাকা পর্যন্ত।

বেসনের দাম বেড়েছে কেজি প্রতি ২০ টাকা। আগের বাড়তি দামেই বিক্রি হচ্ছে সয়াবিন তেল। এভাবে ইফতারে প্রয়োজনীয় সব ধরনের পণ্যের দামেই হওয়া লেগেছে।

রোজার বাকি আর মাত্র দুদিন, শুক্রবার (১ এপ্রিল) সাপ্তাহিক ছুটির দিনে ক্রেতাদের ভিড় একটু বেশিই ছিল। আর ভিড়ে পোয়াবারো ব্যবসায়ীদের। বেড়েছে সব ধরনের নিত্যপণ্যের দাম।

রাজধানীর পাইকারি ও খুচরা ব্যবসায়ী এবং ভোক্তারের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, কেবল তেল, চিনি বা মাংস নয়, বেশিরভাগ নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের দামই বেড়েছে।

দাম বাড়ার এই প্রতিযোগিতায় এবার নতুন পণ্যের আগমন, রোজার অতিপ্রয়োজনীয়পণ্য বেসন আর সব ধরনের মসলার দাম বেড়েছে কেজিতে দেড়শ’ টাকা পর্যন্ত।

গত সপ্তাহে তেলের দাম কিছুটা কম থাকলেও এ সপ্তাহে আবার দাম বাড়ানো হয়েছে। এক লিটারের বোতল থাকলেও পাঁচ বা দুই লিটারের বোতল পাওয়া যাচ্ছে না।

তেলের পাশাপাশি বেড়েছে চিনি, ছোলা, আলু, শসা, বেগুনের দাম। রোজার সময় এসব পণ্যের দাম আরও বাড়বে বলে জানিয়েছেন বিক্রেতারা।

সাদা চিনি ৮৫ টাকা, লাল চিনি ১০৫-১১০ টাকা, ছোলা ৭৫-৮০ টাকা। তবে পেঁয়াজের দাম কমেছে। দেশি পেঁয়াজ বিক্রি হচ্ছে ৩৫ টাকা কেজি দরে, যা গত সপ্তাহেও ছিল ৪০-৪৫ টাকা।

রোজার আগে সবজির দামও বেড়েছে। এর মধ্যে আলু ২০ টাকা। শসা ৬০ টাকা হলেও এর দাম ৭০ টাকা হবে। বেগুনের দাম ৫০ থেকে বেড়ে ১০০ টাকা হবে বলে জানান দিয়েছে বিক্রেতারা।

মাছ মাংসের বাজার, রোজা আর সরবরাহের অজুহাতে বাজারে বেড়ে গেছে প্রায় সব ধরণের মাছের দাম। ক্রেতারা বলছেন প্রতিবারের মত এবারও জিম্মি হচ্ছেন তারা।

নতুন করে এই সপ্তাহে দাম না বাড়লেও একটু স্থিতিশীল আছে চালের বাজার,আগের বাড়তি দামেই মিনিকেট বিক্রি হচ্ছে ৬৫ থেকে ৬৮ টাকায় আর মোটা চালের দাম ৪৮ থেকে৫০ টাকা।

জাগরণ/অর্থনীতি/কেএপি