• ঢাকা
  • সোমবার:২০২৪:এপ্রিল || ১১:৫৯:৩৬
প্রকাশের সময় :
অগাস্ট ২৯, ২০২২,
৫:৩৩ অপরাহ্ন

সর্বশেষ আপডেট :
অগাস্ট ২৯, ২০২২,
৫:৩৩ অপরাহ্ন

৩৭৭ বার দেখা হয়েছে ।

ফতুল্লায় দুই পক্ষের সংঘর্ষ, পুলিশের ফাঁকাগুলি

ফতুল্লায় দুই পক্ষের সংঘর্ষ, পুলিশের ফাঁকাগুলি

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দুই গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। সোমবার (২৯ আগস্ট) সকালে বক্তাবলী ইউনিয়নের আকবর এলাকায় সামেদ আলী বাহিনী ও ইউপি চেয়ারম্যান শওকত আলী সমর্থিত জাকির বাহিনীর মধ্যে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে।

এসময় উভয়পক্ষের ২০ জন আহত হয়েছেন বলে জানা গেছে। তবে তাৎক্ষণিকভাবে তাদের পরিচয় পাওয়া যায়নি। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে ২০ রাউন্ড ফাঁকাগুলি ছোড়ে। বর্তমানে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।

বক্তাবলী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. শওকত আলী বলেন, কিছুদিন আগে বাকি টাকা চাওয়া নিয়ে আমার আত্মীর-স্বজনদের বাড়িতে সামেদ আলী বাহিনীর লোকজন হামলা করে। এ নিয়ে এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছিল। আজ সেই বিরোধের জেরে ফের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। পরে ফতুল্লা থানা ওসির উপস্থিতিতে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে।

তিনি আরও বলেন, বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। এ ঘটনায় আমাদের প্রায় সাত-আটজন আহত হয়েছেন।

এ বিষয়ে সামেদ আলীর সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তাকে পাওয়া যায়নি। তবে তাদের পক্ষের ১০-১২ জন আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

ফতুল্লা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ রিজাউল হক দিপু বলেন, আগের ঘটনার রেশ ধরে সামেদ আলী বাহিনীর সঙ্গে বক্তাবলী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শওকত আলীর সমর্থিত জাকির গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে উভয় গ্রুপকে ধাওয়া দিলে তারা পিছু হটে। তবে এসময় একটি পক্ষ পুলিশের ওপর ইটপাটকেল ছুড়লে পুলিশ আত্মরক্ষার্থে ২০ রাউন্ড গুলি ছোড়ে। বর্তমানে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে। এই ঘটনায় কাউকে আটক করা হয়নি।